সোমবার, ০৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ১২:২৭ পূর্বাহ্ন

প্রতিনিধি নিয়োগ-
ঢাকা সহ সারাদেশের প্রতিটি জেলা, উপজেলা, কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয় পর্যায়ে সংবাদদাতা নিয়োগ করা হবে। আগ্রহী প্রার্থীরা dailyalochitosokal@gmail.com এ সিভি প্রেরণ করার জন্য অনুরোধ করছি।
তুই ছাড়া সবই ভুল গানের মিউজিক ভিডিও নিয়ে থানায় সাধারণ ডায়েরী

তুই ছাড়া সবই ভুল গানের মিউজিক ভিডিও নিয়ে থানায় সাধারণ ডায়েরী

মাসুদুর রহমান

“তুই ছাড়া সবই ভুল” গানের মিউজিক ভিডিও নিয়ে মুগদা থানায় সাধারণ ডায়েরী করা হয়েছে। ডাইরেক্টর খান রায়হান বাদী হয়ে গীতিকার রাকিবুল হাসান সহ অজ্ঞাত কয়েকজনের নামে গতকাল বৃহস্পতিবার (৬ মে)  রাতে মুগদা থানায়  সাধারণ ডায়েরী করেন।

জানা যায়, জীবন ওয়াসিফ এর সুরে বাংলা গানের যুবরাজ আসিফ আকবর ও নাদিরা মুক্তার কন্ঠে ‘তুই ছাড়া সবই ভুল’ শিরোনামে গানটি ১৪ ফেব্রুয়ারী ইউটিউব চ্যানেল এস এ চয়েস মিউজিক থেকে মুক্তি পাওয়ার কথা ছিল। গানটির কথা লিখেছেন রকিবুল হাসান। মুশফিক লিটুর সঙ্গীতায়োজন এ খান রায়হান নির্মাণ করেন মিউজিক ভিডিও। এতে পারফর্ম করেছে নাজমুল হাসান ও বকুল ইসলাম অন্নি।

সাধারণ ডায়েরী সুত্রে জানা গেছে,এস এ চয়েস মিউজিক ব্যবস্থাপক পরিচালক,গীতিকার  রাকিবুল হাসানের সঙ্গে “তুই ছাড়া সবই ভুল” গানে ডাইরেক্টর খান রায়হান সকল খরচ বহন করে মিউজিক ভিডিও ধারণ করেন। কৌশলে ধারণকৃত মিউজিক ভিডিও বাদ দিয়ে ব্যবসায়িকভাবে খান রায়হানকে ক্ষতিগ্রস্ত করার উদ্দেশ্যে অন্যদের দিয়ে মিউজিক ভিডিও ধারণ করে বাজারে বাহির করার চেষ্টা করে এস এ চয়েস মিউজিক কতৃপক্ষ।  সংবাদ পেয়ে গানের গীতিকার রকিবুল হাসান হাসানের সাথে খান রায়হান যোগাযোগ করিলে  ৪ মে  রাত ১০ টায় তার ব্যবহৃত মোবাইল নাম্বার এবং হোয়াটসঅ্যাপে কল দিয়ে গানের মিউজিক ভিডিওর ব্যাপারে জানতে চাওয়ায় সে খান রায়হানকে বিভিন্ন ধরনের ভয়-ভীতি হুমকি-ধমকি প্রদান করে।  পরে ডাইরেক্টর খান রায়হান বাদী হয়ে ৬ এপ্রিল রাতে মুগদা থানায় সাধারণ ডায়েরি ( নং- ৩৯৬, তারিখ -৬/৫/২০২১ ইং) দায়ের করে।

এস এ চয়েস মিউজিকের ব্যবস্থাপক পরিচালক,গীতিকার  রাকিবুল হাসানের সঙ্গে মুঠোফোনে বক্তব্য চাইলে এ বিষয়ে তার কোন বক্তব্য নেই বলে তিনি জানান৷

এ বিষয় নিয়ে কথা হলে ডাইরেক্টর খান রায়হান জানান, আমি তাদেরকে অনেকবার বলেছি যে, ভাই আমার উপর আপনারা জুলুম করা শুরু করবেন না। তারা আরো আমাকে হুমকি-ধমকি দিয়েছে। আমাকে তারা দেখে নেবে তাই আমি আইনের আশ্রয়ে উপনীত হয়েছি। আমি খুব তাড়াতাড়ি চিন্তা করতেছি তাদের নামে সুপ্রিম কোর্ট থেকে লিগ্যাল নোটিস পাঠাবো। আমার উকিলের সাথে কথা হয়েছে এবং তার কাছে আমি সমস্ত কাগজপত্র হস্তান্তর করি। আমি আশা করব খুব তাড়াতাড়ি আমি সুষ্ঠু বিচার পাব এবং এই কোম্পানির আরো অনেক দুর্নীতি আমি আপনাদের মাঝে তুলে ধরব।

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ণ বেআইনি
Design & Developed BY SheraWeb.Com